Breaking Posts

6/trending/recent
Type Here to Get Search Results !

বালোচিস্তানে ভয়াবহ বন্যা, খাদ্য, পানীয় ও ওষুধের সংকট; মৃত ৫৭৯



জলবায়ু পরিবর্তনের মারাত্বক ছোবল পাকিস্তানে। এ বছরে রেকর্ড গরমের পর এবার রেকর্ড বৃষ্টিপাত। পাকিস্তানের একাধিক প্রদেশ ও শহর ইতিমধ্যেই প্লাবিত হলেও ভয়াবহ পরিস্থিতি বালোচিস্তানে। রেকর্ড বৃষ্টিপাতের ফলে ডুবে গিয়েছে গ্রামের পর গ্রাম। ভেসে গিয়েছে বাড়িঘর। জলের তোড়ে অনেকে নিরাপদ আশ্রয়ে পালিয়ে বাঁচার সময় পাননি। হিসেব অনুযায়ী, বন্যায় এখনও পর্যন্ত ৫৭৯ জনের মৃত্যু হয়েছে। 

পাকিস্তানের আবহাওয়া দপ্তরের দেওয়া তথ্য অনুযায়ী, এ বছরে স্বাভাবিক বৃষ্টিপাতের তুলনায় ৩০৫ শতাংশ বেশি বৃষ্টিপাত হয়েছে বালোচিস্তানে। আর এর ফলে চরম দুর্বিষহ পরিস্থিতি সৃষ্টি হয়েছে বালোচিস্তানে। বিশেষ করে প্রত্যন্ত ও দূর দুরান্তের গ্রামগুলোতে পরিস্থিতি ভয়াবহ। মাটির তৈরি বাড়ি ভেসে গিয়েছে বন্যার জলে। ঘুমন্ত অবস্থায় বন্যার জলে ভেসে গিয়ে নিখোঁজ হয়েছেন অনেকে। এমনকি বন্যায় বহু শিশুর মৃত্যু হয়েছে। এদিকে প্রত্যন্ত এলাকা হওয়ায় উদ্ধার কাজ ব্যাপকভাবে বাধা পাচ্ছে। 

গত ১৫ দিনে বেশিরভাগ এলাকায় বন্যার জল নেমে গেলেও মানুষের জীবনযাত্রার এখনও স্বাভাবিক হয়নি। যারা প্রাণে বেঁচে গিয়েছেন, তাঁরা ধ্বংসপ্রাপ্ত ঘরবাড়ি পুনরায় বসবাসের যোগ্য করে তোলার চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছেন। অনেকে আবার নিজের প্রিয় জনের খোঁজে হন্যে হয়ে ঘুরছেন।

এদিকে বন্যার জল নেমে যাওয়ার পর খাদ্য, পানীয় জল ও ওষুধের ব্যাপক সংকট দেখা দিয়েছে। পানীয় জলের অভাবে অনেকে নোংরা জল পান করতে বাধ্য হচ্ছেন। আর তার ফলে বাড়ছে জল বাহিত রোগে আক্রান্তের সংখ্যা। তবে পর্যাপ্ত ওষুধ ও স্বাস্থ্যকর্মী না থাকায় পরিস্থিতি আরও মারাত্বক আকার ধারন করেছে। অনেকে আবার বর্তমান পাকিস্তান সরকারের দিকে বঞ্চনার আঙ্গুল তুলেছেন। তাঁরা বলছেন পাকিস্তান সরকার বালোচিস্তানে প্রয়োজনীয় সাহায্য ও ত্রাণ পাঠাচ্ছে না। 

বালোচিস্তানের মুখ্যমন্ত্রী আবদুল কুদ্দুস বেজেনজো বলেন, ‛ভয়াবহ ক্ষতির শিকার হয়েছে বালোচিস্তান। ব্যাপক সাহায্য এবং আন্তর্জাতিক মহলের ত্রাণ ছাড়া এ অবস্থা কাটিয়ে ওঠা সম্ভব নয়’। 


Post a Comment

0 Comments
* Please Don't Spam Here. All the Comments are Reviewed by Admin.

Top Post Ad

Ads Bottom