Breaking Posts

6/trending/recent
Type Here to Get Search Results !

‛কুরেশি’ জাতের মেয়ে হয়ে ‛সাইফি’ জাতের ছেলের সঙ্গে পালিয়ে বিয়ে, নিজের মেয়ের মাথা কেটে খুন করলেন বাবা-মা

ছবি: সানিয়ার দেহ ও গ্রেপ্তার হওয়া তাঁর বাবা-মা

গত ১২ই আগস্ট মীরাটের লিসারি গেট এলাকায় মুন্ডহীন এক তরুণীর দেহ উদ্ধারের ঘটনার কিনারা করলো পুলিশ। তাঁর নাম সানিয়া কুরেশি। ওই তরুণীকে খুনের অভিযোগে তাঁর পিতা-মাতাকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। জেরায় ওই তরুণীর পিতা জানায় যে তাঁরা উঁচু জাতের মুসলিম। কিন্তু তাঁর মেয়ে নিচু জাতের এক মুসলিম যুবককে বিয়ে করেছিল। তাই নিজের সম্মান বাঁচাতে মেয়েকে খুন করেছেন তিনি।

জানা গিয়েছে, লিসারি গেট এলাকার বাসিন্দা শাহিদ কুরেশি এবং সেহনাজ কুরেশি। তাদের কন্যা সানিয়া কুরেশি। তাঁর সঙ্গে একই এলাকার বাসিন্দা ওয়াসিম সাইফির সঙ্গে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে উঠেছিল। কিন্তু তাঁর পিতা শাহিদ কুরেশি তাকে তাঁর এক আত্মীয়ের সঙ্গে বিয়ে দিতে চেয়েছিলেন। কিন্তু তাতে রাজি ছিলেন না সানিয়া। তাই সে বাড়ি থেকে পালিয়ে যায় এবং ওয়াসিম কুরেশিকে বিয়ে করে। পরে পঞ্চায়েতের হস্তক্ষেপে সানিয়াকে বাড়িতে ফিরিয়ে আনে তাঁর পরিবার।

জেরায় শাহিদ কুরেশি জানিয়েছেন, সানিয়া নিচু জাতের যুবককে বিয়ে করায় তাদের সম্মান ও মর্যাদা ক্ষুন্ন হয়েছিল। কুরেশি জাতের লোকেদের কাছে নিজেদের মাথা হেঁট হয়ে গিয়েছিল। কারণ সানিয়া নিচু জাত ‛সাইফি’ জাতের যুবকের সঙ্গে পালিয়ে গিয়েছিল। তাই অপমান সহ্য করতে না পেরে আমরা অন্য এলাকায় গিয়ে থাকতে শুরু করি। আর এই কারণেই সানিয়াকে খুন করার সিদ্ধান্ত নিই।

পুলিশের জেরায় শাহিদ জানায় যে, ঘটনার দিন রাতে ঘুমন্ত অবস্থায় সানিয়ার গলার নলি কেটে ফেলি আমি। যাতে চিৎকার চেঁচামেচি না করতে পারে, তাঁর মা সানিয়ার মুখে কাপড় গুঁজে দেয় এবং পা দুটি চেপে ধরে। পরে শরীর থেকে মাথা আলাদা করে ফেলি। তারপর দেহ বস্তায় ভরে লিসারি গেট এলাকায় কবরস্থানে নিয়ে যাই সাইকেলে করে। ওখানে কবর দেওয়ার উদ্দেশ্যে গিয়েছিলাম। কিন্তু আশেপাশে লোকজন থাকায় দেহ বাইরে ফেলে চলে আসি। 

পুলিশ ইতিমধ্যেই সানিয়ার বাবা ও মা-কে গ্রেপ্তার করেছে। তাদের বিরুদ্ধে ভারতীয় দণ্ডবিধির ৩০২, ২০১ এবং ১২০বি ধারায় মামলা দায়ের করেছে পুলিশ। শুধুমাত্র সম্মান বাঁচাতেই এমন নৃশংসভাবে নিজের কন্যাকে খুন করতে পারে বাবা-মা, তা ভেবেই শিউরে উঠছেন অনেকে।

তবে ওয়াকিবহাল মহলের মতে, উত্তর প্রদেশ এবং দেশের একাধিক রাজ্যে মুসলিমদের মধ্যে তীব্র জাতপাত রয়েছে। সম্মান রক্ষার্থে খুন, ছোটখাটো বিষয় নিয়ে রেষারেষি, নিচু জাত বলে বিয়ে না দেওয়া ইত্যাদি বিষয় রয়েছে। এমনকি সামাজিক বয়কটের ঘটনাও ঘটে। আর সেই ঘৃণ্য জাতপাতের বলি হলেন সানিয়া কুরেশি, বলছেন তাঁরা।

Post a Comment

0 Comments
* Please Don't Spam Here. All the Comments are Reviewed by Admin.

Top Post Ad

Ads Bottom